Tuesday, September 24, 2019

শিবগঞ্জের গাংনগর বিদ্যালয়ের ভবণ ঝুঁকিপূর্ণ খোলা আকাশের নিচে শিক্ষার্থীদের পাঠদান

আইসিটিনিউজ বিডি২৪: আহমেদ রুবেল শিবগঞ্জ (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলার ঐতিহ্যবাহী গাংনগর এ.এম বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের ভবণ ঝুঁকিপূর্ণ হওয়ায় খোলা আকাশের নিচে মেহগনি বাগানে শিক্ষার্থীদের পাঠদান কার্যক্রম চলছে ।
জানা গেছে উপজেলার ঐতিহ্যবাহী গাংনগর এ.এম বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয় ১৯৫০ সালে স্থাপিত হয়েছে । অজো পাড়া গ্রামে ওই প্রতিষ্ঠানটি প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পর থেকে অত্র এলাকার ছেলে মেয়েদের মাঝে শিক্ষার আলো ছড়িয়ে আসছে । দীর্ঘ প্রায় ৬০ বছর পূর্বে বিদ্যালয়টি স্থাপিত হওয়ায় শ্রেণিকক্ষ, ছাত্রীকমন রুম, ল্যাব্রেটরী ও অফিস কক্ষ সহ প্রায় ২০টি রুমের ছাদ এর প্লাস্টার ভেঙ্গে শিক্ষার্থীদের গায়ে ও মাথার উপর পড়ছে । শিক্ষার্থীরা জানান ৯ম শ্রেণির ক্লাস চলাকালে ওই ক্লাসের রিফাত আল কাউসার এর মাথায় প্লাষ্টার খুলে পরলে সে মারাত্মক ভাবে আহত হয় । এর পর থেকে ওই ভবণে ক্লাস করতে শিক্ষার্থী ও শিক্ষক ভয় পাচ্ছে । যে কোন মূহুর্তে ছাদের পাস্টার খুলে পরে প্রাণ হানির ঘটনা ঘটতে পারে এই আতংক শিক্ষার্থী ও শিক্ষকদের মধ্যে বিরাজ করছে । তাই খোলা আকাশের নিচে মেহগনি বাগানে প্রতিদিন পাঠদান কার্যক্রম চলছে । এ ব্যাপারে অত্র বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এ.এস.এম ফসিয়ার রহমান বলেন, চলতি বর্ষার কারণে ছাদ চুয়ে ঝুঁকিপূর্ণ হওয়ায় ছাদ থেকে পানি পড়ছে । এমনকি প্লাস্টার খুলে শিক্ষার্থীদের মাথায় পড়ছে । এই বিদ্যালয়ে বর্তমানে ১১শ শিক্ষার্থী নিয়মিত ভাবে ক্লাসে উপস্থিত হয় বলে তিনি জানান । এব্যাপারে অত্র বিদ্যালয়ের সভাপতি রায়হান উদ্দিন মাছুম বলেন, আমি সম্প্রতি বিদ্যালয়ের সভাপতি নির্বাচিত হয়েছি । বিদ্যালয়টি অবহেলিত হওয়ার ফলে দীর্ঘদিন যাবৎ বিভিন্ন সমস্যায় জর্জড়িত হয়েছে । তিনি বলেন বর্তমান সংসদ সদস্য বিদ্যালয়ের সমস্যার কথা জানার পর তাৎক্ষনিক ভাবে সংস্কার কাজের জন্য ১৭ লক্ষ টাকা অনুদান প্রদান করেছেন । তবে অবিলম্বে বিদ্যালয়ের একাডেমিক ভবন নির্মাণ করা না হলে শিক্ষা কার্যক্রমের ব্যাঘাত ঘটবে ।

No comments:

Post a Comment